আত্মহত্যায় প্ররোচনা: সিফাতের স্বামীর ১০ বছরের কারাদণ্ড

../news_img/sifat.jpg

মৃদুভাষণ ডেস্ক :: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সাবেক শিক্ষার্থী ওয়াহিদা সিফাতের আত্মহত্যায় প্ররোচনার দায়ে তার স্বামী মোহাম্মদ আসিফ প্রিসলিকে ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। সোমবার ঢাকার ৩ নম্বর দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক সাঈদ আহমেদ আসামিদের উপস্থিতিতে দুই বছর আগের আলোচিত এ মামলার রায় ঘোষণা করেন। সিফাতের স্বামী আসিফকে রায়ে ১০ বছরের সাজার পাশাপাশি ১০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। সিফাতের শ্বশুর অ্যাডভোকেট হোসেন মোহাম্মদ রমজান, শাশুড়ি নাজমুন নাহার নজলী এবং প্রথম ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসক রাজশাহী মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান জোবাইদুর রহমান বেকসুর খালাস পেয়েছেন। রায় ঘোষণার আগে আসিফকে কারাগার থেকে কাঠগড়ায় হাজির করা হয়। জামিনে থাকা বাকি তিন আসামিও আদালতে হাজির হন।

রায়ের আলোচনায় মৌখিকভাবে বিচারক বলেন, পুলিশ এ ঘটনার প্রকৃত রহস্য উন্মোচন করতে ব্যর্থ হয়েছে। বিষয়টি হত্যা না আত্মহত্যা সেটা নিয়ে পুলিশ নিজেই দ্বিধাদ্বন্দ্বে ছিল। প্রশ্নের সুরাহা না করেই পুলিশ আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করে। যৌতুকের কারণে মারধরের ঘটনা এখানে প্রমাণিত হয়নি।